পোষ্টারে এক স্নিগ্ধ, সরল, সুন্দর প্রেমের বার্তা নিয়ে 'মায়াবতী'

বার্তা জগৎ ডেস্ক:

প্রকাশিতঃ ১৪ জুলাই ২০১৯ সময়ঃ সন্ধ্যা ৬ঃ৪৫
পোষ্টারে এক স্নিগ্ধ, সরল, সুন্দর প্রেমের বার্তা নিয়ে 'মায়াবতী'
পোষ্টারে এক স্নিগ্ধ, সরল, সুন্দর প্রেমের বার্তা নিয়ে 'মায়াবতী'

 

আফজালুর ফেরদৌস রুমন:

জনপ্রিয় নির্মাতা অরুণ চৌধুরী তার পরিচালিত 'মায়াবতী' নিয়ে খুব শ্রীঘই আসছেন দর্শকদের সামনে। ইতিমধ্যে সেন্সর সার্টিফিকেট প্রাপ্তি, সিনেমার ভিন্নধর্মী কন্টেন্ট, তিশা-ইয়াশ জুটির নতুনত্ব, চরিত্রগুলোর লুক নজর কেড়েছে সিনেমাপ্রেমীদের। অন্যভাবে বলা যায় এই বছরের অন্যতম আলোচিত এবং প্রতীক্ষিত সিনেমা হিসেবে 'মায়াবতী' আলাদা একটা জায়গা তৈরী করে নিতে সক্ষম হয়েছে। আজ রিলিজ দেয়া হয়েছে 'মায়াবতী' সিনেমার পোষ্টার। প্রকাশের পর পরেই সবার নজর কাড়তে সক্ষম হয়েছে 'মায়াবতী'। খুব সাধারণ পোষ্টার কিন্তু নামের মতোই সবাইকে যেন মায়ায় জড়িয়েছে এটি। পোষ্টারে তিশা এবং ইয়াশ রোহানকে দেখা যাচ্ছে। স্নিগ্ধ, শান্ত, সুন্দর এক প্রেম কাহিনীর আভাস দিচ্ছে 'মায়াবতী'র পোষ্টার। 

এক কিশোরী ছোটবেলায় তার মায়ের কাছ থেকে চুরি হয়ে ‘ওম্যান ট্রাফিকিং’ এর ফাঁদে পড়ে বিক্রি হয়ে যায়, দৌলতদিয়ার রেড লাইট এরিয়ায়। সেই পাড়ায় সেই তরুণীকে ধীরে ধীরে গানে, নাচে পারদর্শী করে গড়ে তুলতে থাকেন সেখানকার সংগীত গুরু খোদা বক্স। সময়ের গতিতে সেই কিশোরী এক সময় তরুণী বয়সে পদার্পণ করেন। রেড লাইট এলাকার সেই তরুণীর গানের প্রেমে পড়ে কাছাকাছি এলাকার এক গৃহস্থবাড়ির পড়াশোনা করা ব্যারিস্টার পুত্র। বিধাতার নির্মম পরিহাসে একটা সময় সেই তরুণী ভয়ংকর খুনের ঘটনাতেও জড়িয়ে পড়ে। শুরু হয় নতুন গল্প, নতুন সংগ্রাম। এরকম এক ভিন্নধর্মী এবং শ্বাসরুদ্ধকর গল্প নিয়েই নির্মিত হয়েছে জনপ্রিয় পরিচালক অরুণ চৌধুরীর দ্বিতীয় সিনেমা 'মায়াবতী'। 

আর এই সিনেমায় নাম ভূমিকায় মূল চরিত্রে অভিনয় করেছেন দেশের অন্যতম সেরা দক্ষ এবং জনপ্রিয় অভিনেত্রী তিশা। সাথে আছেন সময়ের অন্যতম সম্ভাবনাময় অভিনেতা ইয়াশ রোহান। 

বেশ কিছু চলচ্চিত্রে অভিনয় করলেও প্রথমবারের মতো কোনো চলচ্চিত্রের নাম ভূমিকায় অভিনয় করলেন জনপ্রিয় অভিনেত্রী তিশা। এ চলচ্চিত্রের মাধ্যমেই প্রথমবারের মতো বড় পর্দায় জুটিবদ্ধ হলেন তিশা ও ‘স্বপ্নজাল’ খ্যাত নায়ক ইয়াশ রোহান। অভিনেতা ইয়াশ রোহান তার প্রতিক্রিয়ায় জানান, ‘স্বপ্নজাল’ সিনেমার পর কয়েকটি চলচ্চিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাব পেয়েছি। তবে কোনো সিনেমার সঙ্গে নিজেকে মানিয়ে নিতে পারছিলাম না। ‘স্বপ্নজাল’ সিনেমার ‘অপু’ চরিত্রের পর ‘মায়াবতী’র ‘ইকবাল’ আমার দ্বিতীয় চলচ্চিত্র ও চরিত্র হিসেবে শতভাগ পারফেক্ট মনে হয়েছে। আমি মনে করি আমরা যেমন আনন্দ নিয়ে কাজটি করেছি, তেমনি দর্শকও আনন্দ নিয়ে সিনেমাটিকে গ্রহণ করবেন। 

আনোয়ার আজাদ ফিল্মস ও অনন্য সৃষ্টি ভিশন প্রযোজিত এই চলচ্চিত্রটি খুব শ্রীঘই মুক্তি দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন পরিচালক অরুণ চৌধুরী। অরুণ চৌধুরী আরো জানান, ‘সেন্সর বোর্ডের সম্মানিত সদস্যরা আমাদের এই চলচ্চিত্রটি দেখে মুগ্ধ হয়েছেন। এ জন্য তাদেরকে তো অবশ্যই, সেই সাথে ‘মায়াবতী’ চলচ্চিত্রের সঙ্গে জড়িত প্রতিটি সদস্যকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও অভিনন্দন জানাই। যারা এত দিন ধরে ‘মায়াবতী’ চলচ্চিত্রটি দেখার জন্য অপেক্ষা করছেন, তারা খুব শিগগিরই দেখতে পাবেন আশপাশের সিনেমা হলে। সবাই আমাদের জন্য আশীর্বাদ করবেন এবং পাশে থাকবেন।

‘মায়াবতী’ চলচ্চিত্রে তিশা-ইয়াশ রোহান ছাড়াও রয়েছেন অসংখ্য মেধাবী অভিনয়শিল্পীদের সমাবেশ। অভিনয় করেছেন রাইসুল ইসলাম আসাদ, মামুনুর রশীদ, দিলারা জামান, ফজলুর রহমান বাবু, আফরোজা বানু, ওয়াহিদা মল্লিক জলি, আব্দুল্লাহ রানা, অরুণা বিশ্বাস, তানভীর হোসেন প্রবাল, আগুন প্রমুখ।

বার্তা জগৎ২৪/ এম এ