ঢাকা, বুধবার, ৬ মাঘ ১৪২৭, ২০ জানুয়ারী, ২০২১

Facebook Twitter Instagram Linkedin Youtube

Logo

যে কারণে বদলে গেলো অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় সঙ্গীত

বার্তাজগৎ২৪ ডেস্ক:
প্রকাশিত: সোমবার, ০৪ জানুয়ারী, ২০২১, ০৮:১৮
যে কারণে বদলে গেলো অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় সঙ্গীত
ফাইল ফটো

১৫০ বছরের পুরোনো জাতীয় সঙ্গীতের পরিবর্তন এনেছে অস্ট্রেলিয়া। মূলত দেশটি তাদের আদিবাসী জনগোষ্ঠীর ইতিহাস ও ঐতিহ্যের স্বীকৃতি দিতেই জাতীয় সংগীতের এই পরিবর্তন এনেছে। গত বৃহস্পতিবার এই পরিবর্তনের ঘোষণা দেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন। খবর ডয়চে ভেলে।

অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় সংগীতের দ্বিতীয় লাইনে আগে বলা ছিল - 'আমরা তরুণ, আমরা মুক্ত'। এই লাইনে পরিবর্তন এনে এখন বলা হচ্ছে - 'আমরা সবাই এক, আমরা মুক্ত'।

এ প্রসঙ্গে দেশটির প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন বলেছেন, জাতি হিসেবে তুলনামূলক নবীন হলেও অস্ট্রেলিয়ার আদিবাসীদের সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে এক প্রাচীন ইতিহাস। জাতীয় সংগীতে বদলের ফলে তেমন কিছুই হবে না আবার অনেক কিছুই হবে বলে তিনি বিশ্বাস করেন।

প্রসঙ্গত, ১৭৮৮ সালে প্রথম ব্রিটেনের জাহাজ অস্ট্রেলিয়ার উপকূলে নোঙ্গর করে।

যার মধ্য দিয়ে পরবর্তীতে নবীন এই রাষ্ট্রের উত্থান ঘটলেও সেখানে আদিবাসীদের বসবাসের ইতিহাস ৬৫ হাজার বছরের পুরাতন।

প্রসঙ্গত আদিবাসীদের প্রতিনিধিত্ব নিশ্চিত করতে অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় সংগীতে পরিবর্তন আনার দাবি ছিল অনেক দিন থেকেই। কিন্তু, ডানপন্থি রাজনীতিকদের বিরোধিতায় এ পরিবর্তন এতদিন সম্ভব হয়নি। নতুন বছরে এসে আদিবাসীদের দাবি আশার মুখ দেখলো।

বার্তাজগৎ২৪ / এম এ

আরো পড়ুন:

সামরিক শক্তি ছাড়া সুষ্ঠু আলোচনায় অংশ নেওয়া সম্ভব নয়-জে.গোলামরেজা জালালী

ট্রাম্পের আদেশ সাড়া দেয়নি দেশটির সামরিক বাহিনী

সুদানে ফের সহিংসতায় নিহত ৪৮

আগ্রাসন চালিয়ে নিরাপদে থাকার আশা করতে পারে না- ইয়েমেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী 

যুক্তরাষ্ট্রে ভ্যাকসিনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ায় ৫৫ জনের মৃত্যু



ইসরাইলে করোনা টিকায় ১৩ জনের মুখ বিকৃত

বার্তা জগৎ ডেস্ক
প্রকাশিত: সোমবার, ১৮ জানুয়ারী, ২০২১, ০৫:১৬
করোনা টিকে দেওয়া হচ্ছে
করোনা টিকে দেওয়া হচ্ছে

ফাইজারের করোনা টিকা নেয়ার পর ১৩ জনের মুখ বেঁকে (প্যারালাইসিস) গেছে ইসরাইলে। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দাবি, ভ্যাকসিনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ায় ২৮ ঘণ্টা তাদের মুখ বাঁকা ছিল।

টিকা নেওয়ায় পর পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া পাওয়া ব্যক্তির সংখ্যা আরো বেশি বলে ধারণা করা হচ্ছে। ভুক্তভোগীদের মধ্যে একজন বলেন, ‘অন্তত ২৮ ঘণ্টা আমার মুখ বিকৃত ছিল। তবে তা ধীরে ধীরে সেরে গেছে।’

কেনও মুখ বাঁকা হয়ে গেল বিষয়টি পরিষ্কার না ইসরাইলি চিকিৎসকদের কাছে। পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নিয়েও এখনো চুপ রয়েছে ফাইজার-বায়োএনটেকের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।

চিকিৎসকরা জানান, যারা প্রথম ধাপে টিকা নিয়েছিলেন তাদের মুখে কিছুটা পরিবর্তন লক্ষ্য করা গিয়েছিলো। পরে তাদের পর্যবেক্ষণে রাখা হয়।



যাদের সমস্যা দেখা দিয়েছে তাদের টিকার দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া নিয়ে বিশেষজ্ঞরা শঙ্কিত। তবে তাদের মুখ স্বাভাবিক হয়ে যাওয়ায় টিকার দ্বিতীয় ডোজ দিতে চাচ্ছে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

নরওয়েতেও ফাইরাজের টিকা নেওয়ার পর ২৩ জন মারা যান। নরওয়ের কর্মকর্তারা জানান, যারা মারা গেছেন তাদের সবার বয়স ৮০ বছরের বেশি। এছাড়াও অনেকের শরীরে নানা পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা গেছে। একই পরিস্থিতি ভারতের নয়াদিল্লিতেও। ভারতের চিকিৎসকদের দেয়া তথ্য মতে, টিকা নেয়া ৫০ জন মানুষের শরীরের সমস্যা পাওয়া গেছে। তবে টিকা নিয়ে এতো অভিযোগের পরও এবিষয়ে এখনো মুখ খোলেনি ফাইজার-বায়োএনটেক।


আরো পড়ুন:

ফাইজারের ভ্যাকসিন নিয়ে আইসিইউতে চিকিৎসক

করোনা ভাইরাসের টিকা নেওয়ার একদিন পরেই পর্তুগিজ স্বাস্থ্যকর্মীর মৃত্যু

ট্রাম্পকে গ্রেফতারে সহযোগিতা চেয়ে ইন্টারপোলে ইরানের চিঠি

সৌরভের অসুস্থতায় 'স্বাস্থ্যকর' তেলের বিজ্ঞাপন নিয়ে নেট দুনিয়ায় ব্যাপক ট্রোল

মার্কিন পার্লামেন্টে হামলা-সংঘর্ষে নিহত ৪



ট্রাম্পকে নজিরবিহীন দ্বিতীয়বারের জন্য অভিশংসন করা হয়েছে

প্রতিনিধি, বার্তা জগৎ২৪
প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ১৪ জানুয়ারী, ২০২১, ০৫:৩১
ট্রাম্পকে দ্বিতীয়বারের জন্য অভিশংসন
ট্রাম্পকে দ্বিতীয়বারে অভিশংসন

ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রথম মার্কিন রাষ্ট্রপতি যিনি দ্বিতীয়বারের মতো অভিশংসিত হওয়ার কলঙ্ক নিয়ে তার মেয়াদ শেষ করছেন। কংগ্রেসের একটি যৌথ অধিবেশনে রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত জো বাইডেনের বিজয় স্বীকৃত দেওয়ার সময় ট্রাম্প সমর্থকরা গত সপ্তাহে ক্যাপিটল ভবনে হামলা করেছিলেন।

দাঙ্গা প্ররোচিত করার অভিযোগে বুধবার হাউস অব রিপ্রেজেনটেটিভ সদস্যরা ভোটে অভিশংসনের পক্ষে ভোট দিয়েছেন। তাঁর নিজের দল রিপাবলিকান পার্টির কিছু সদস্যরাও অংশ গ্রহণ করেছিলেন।

আগামী ২০ শে জানুয়ারির আগে সিনেটে তার বিচার হবার সম্ভাবনা নেই। তবে ডেমোক্রেট প্রার্থী জো বাইডেন রাষ্ট্রপতি হিসেবে শপথ নেয়ার পর তার বিচার শুরু হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

পাশাপাশি পরবর্তী টার্মে তাকে সিনেটে বিচারের মুখোমুখি হতে হবে এবং ২০২৪ সালের নির্বাচনে অংশ নিতে নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হতে পারে।

ডেমোক্র্যাটিক সিনেটর চাক শুমার বলেছিলেন, মার্কিন ইতিহাসে প্রথম রাষ্ট্রপতি হিসেবে ডোনাল্ড ট্রাম্প যথাযথভাবে দ্বিতীয়বারের জন্য অভিযুক্ত হওয়ার কলঙ্ক বহন করছেন। সুতরাং সিনেটেও তাঁর বিচার হওয়া দরকার।

বিবিসি জানিয়েছে, ডেমোক্র্যাটিক পার্টি আনা এই প্রস্তাবটিতে ট্রাম্পের দলের রিপাবলিকান পার্টিরও সমর্থন রয়েছে। প্রাক্তন ভাইস প্রেসিডেন্ট ডিক চেনির কন্যা লিজ চেনিসহ দশ রিপাবলিকান নেতা ডেমোক্র্যাটদের পক্ষে ভোট দিয়েছেন। সিএনএন জানায়, ৪৩৫ সদস্যের প্রতিনিধি পরিষদ ২৩২-১৯৭ ভোট দিয়ে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে এই প্রস্তাবটি পাস করা হয়।

ট্রাম্পের সমালোচিত রিপাবলিকান অ্যাডাম কিনজিংগার বলেন, "আমার মন আজ খুব শান্ত।" কারণ আমি আমার ভোট সঠিক জায়গায় দিতে সক্ষম হয়েছি। আমি মনে করি ইতিহাস ঠিক সেভাবে মূল্যায়ন করবে।



আরো পড়ুন:

জন্মনিবন্ধন করতে গিয়ে ইউনিয়ন পরিষদে ধর্ষণের শিকার

বর্তমান শৈত্যপ্রবাহ আরও দু'দিন অব্যাহত থাকতে পারে

ঢাকায় বাড়ছে শীতের দাপট

সামরিক শক্তি ছাড়া সুষ্ঠু আলোচনায় অংশ নেওয়া সম্ভব নয়-জে.গোলামরেজা জালালী

ভারতের পেঁয়াজ আমদানি বন্ধ করলো ব্যবসায়ীরা

ফুলকপির মূল্য কম; ট্রাক ভাড়া না দিয়েই পালিয়ে গেলেন দুই ব্যবসায়ী

মাংস কম দেওয়া নিয়ে বৌভাতে দুই পক্ষের সংঘর্ষে বরের চাচা নিহত

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ৫০ টি রাজ্যে বিশেষ সতর্কতা জারি করা হয়েছে

আলোর সন্ধানের উদ্যােগে শীতার্তদের মাঝে কম্বল ও মাস্ক বিতরণ

৫৬ যাত্রী নিয়ে বিমান নিখোঁজ

×
সারাবিশ্ব বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

১৫০ বছরের পুরোনো জাতীয় সঙ্গীতের পরিবর্তন এনেছে অস্ট্রেলিয়া। মূলত দেশটি তাদের আদিবাসী জনগোষ্ঠীর ইতিহাস ও ঐতিহ্যের স্বীকৃতি দিতেই জাতীয় সংগীতের এই পরিবর্তন এনেছে। গত বৃহস্পতিবার এই পরিবর্তনের ঘোষণা দেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন। খবর ডয়চে ভেলে। অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় সংগীতের দ্বিতীয় লাইনে আগে বলা ছিল - 'আমরা তরুণ, আমরা মুক্ত'। এই লাইনে পরিবর্তন এনে এখন বলা